এপ্রিল ২৪, ২০২৪ ৩:৪৩ পূর্বাহ্ণ
এপ্রিল ২৪, ২০২৪ ৩:৪৩ পূর্বাহ্ণ

হিরো আলমের ওপর হামলার পূর্ণ তদন্ত ও বিচার চাইলো ইইউসহ সহ ১৩ দূতাবাস

13 embassies, including the EU, demanded a full investigation and prosecution of the attack on Hero Alam
হিরো আলমের ওপর হামলার পূর্ণ তদন্ত ও বিচার চাইলো ইইউসহ সহ ১৩ দূতাবাস। ছবি: সংগৃহীত

ঢাকা-১৭ আসনের উপ-নির্বাচনের স্বতন্ত্র প্রার্থী আশরাফুল হোসেন আলম ওরফে হিরো আলম রাজধানীর বনানী বিদ্যানিকেতন স্কুল অ্যান্ড কলেজের ভোটকেন্দ্র পরিদর্শনে গিয়ে হামলার শিকার হয়েছিলেন। তার ওপর হামলার ঘটনায় তীব্র নিন্দা জানিয়েছে ঢাকার ১৩টি দূতাবাস ও হাইকমিশন।

বুধবার (১৯ জুলাই) এক যৌথ বিবৃতিতে এ নিন্দা জানানো হয়। একইসঙ্গে এ ঘটনার পূর্ণ তদন্ত ও দোষীদের জবাবদিহিতার দাবি জানায় দেশগুলো।

যৌথ বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়, ঢাকা-১৭ আসনের প্রার্থী আশরাফুল আলমের (যিনি হিরো আলম নামে পরিচিত) ওপর হামলার ঘটনায় আমরা তীব্র নিন্দা জানাই। গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়ায় সহিংসতার কোনো স্থান নেই। আমরা পূর্ণ তদন্ত ও দোষীদের জবাবদিহিতার দাবি জানাই। আসন্ন নির্বাচন যাতে অবাধ, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ হয় সেজন্য আমরা সংশ্লিষ্ট সবার প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি।

যেসব দূতাবাস ও হাইকমিশন বিবৃতিতে স্বাক্ষর করেছে সেগুলো হচ্ছে- কানাডা, ডেনমার্ক, ফ্রান্স, জার্মানি, ইতালি, নেদারল্যান্ড, নরওয়ে, স্পেন, সুইডেন, সুইজারল্যান্ড, যুক্তরাজ্য, যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন ডেলিগেশন।

এদিকে মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের নিয়মিত সংবাদ সম্মেলনে উঠে আসে হিরো আলমের ওপর হামলার প্রসঙ্গ। এ সময় এক সাংবাদিকের প্রশ্নের জবাবে মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের মুখপাত্র ম্যাথিউ মিলার বলেন, গণতান্ত্রিক নির্বাচনে এ ধরনের রাজনৈতিক সহিংসতার কোনো স্থান নেই। আমরা বাংলাদেশ সরকারকে সহিংসতার যেকোনো প্রতিবেদন পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে, স্বচ্ছভাবে ও নিরপেক্ষভাবে তদন্ত করতে এবং সহিংসতার সঙ্গে জড়িত অপরাধীদের জবাবদিহিতার আওতায় আনার জন্য উৎসাহিত করি।

উল্লেখ্য, গত সোমবার সারাদিন বিভিন্ন ভোটকেন্দ্র পরিদর্শন করেন স্বতন্ত্র প্রার্থী হিরো আলম। বিকেল ৩টা পর বনানী বিদ্যানিকেতন স্কুল কেন্দ্রে কিছু লোক তার ওপর হামলা চালায়। এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত সাতজনকে আটক করেছে পুলিশ।