জুন ১৯, ২০২৪

বুধবার ১৯ জুন, ২০২৪

বাজারে কমেছে পেঁয়াজ-মুরগি-সবজির দাম, বেড়েছে মাছের

বাজারে কমেছে পেঁয়াজ-মুরগি-সবজির দাম, বেড়েছে মাছের
বাজারে কমেছে পেঁয়াজ-মুরগি-সবজির দাম, বেড়েছে মাছের

আমদানি শুরু হওয়ায় খুচরা বাজারে পেঁয়াজের দাম কমেছে। পাঁচদিনের ব্যবধানে কেজিপ্রতি ৩৫-৪০ টাকা কমে এখন ৬০-৭৫ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে পেঁয়াজ। সেই সঙ্গে কমেছে ব্রয়লার ও সোনালি মুরগির দামও। বেশির ভাগ সবজির দামও ২০ থেকে ৩০ টাকা কমেছে। এতে ক্রেতাদের মাঝে স্বস্তি ফিরেছে।

ভারতীয় পেঁয়াজ প্রতি কেজি বিক্রি হচ্ছে ৫৫ থেকে ৬০ টাকায়। আর দেশি পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে ৭০ থেকে ৭৫ টাকায়। গত সপ্তাহে যা ৯০ থেকে ১০০ টাকা করে কিনতে হয়েছে। ব্রয়লার মুরগি বিক্রি হচ্ছে ১৯০ থেকে ১৯৫ টাকা কেজি। যা গত সপ্তাহেও বিক্রি হয়েছে ২১০ থেকে ২২০ টাকা কেজিতে। সোনালি মুরগি প্রতি কেজি বিক্রি হচ্ছে ২৭০ টাকা করে। লেয়ার মুরগি বিক্রি হচ্ছে ৩২০ টাকা। সেই সঙ্গে কমেছে বেশির ভাগ সবজির দামও। মুরগির ডিম বিক্রি হচ্ছে ৪২/৪৪ টাকা।

কুমিল্লার রাজগঞ্জ বাজারের এক ব্যবসায়ী বলেন, ‘ভারতের পেঁয়াজ আসায় প্রতিদিন দাম কমছে। কয়েকদিনের ব্যবধানে কেজিতে ৪০ টাকারও বেশি কমে গেছে। আমদানি বেশি হলে দাম হয়তো আগের মতো হবে। ৪০-৪৫ টাকা কেজি দরে কিনতে পারবেন ভোক্তারা।’

এদিকে মুদি বাজারে ক্রেতার কাছে চিনি এখনো ‘তেতো’। বাজারে কোথাও কোথাও প্যাকেটজাত চিনি পাওয়া যাচ্ছে না। বড় বাজারগুলোতে খুচরা ব্যবসায়ীরা খোলা চিনি বিক্রি করছেন ১৩০- ১৩৫ টাকা দরে। পাড়া-মহল্লার বেশিরভাগ মুদি দোকানে চিনির কেজি বিক্রি হচ্ছে ১৪০ টাকায়। যেখানে সরকার খুচরাপর্যায়ে খোলা চিনির কেজি ১২০ টাকা এবং প্যাকেটজাত চিনির দর ১২৫ টাকা নিধার্রণ করে দিয়েছে।

টমছম ব্রিজ বাজারে এক ক্রেতা বলেন, বাজারে কিছুটা স্বস্তি এসেছে। সবজি, পেঁয়াজ ও ব্রয়লারের দাম কিছুটা কমেছে।

বাজারে প্রতি কেজি আলু বিক্রি হচ্ছে ৩৫/৪০ টাকায়। বেগুন বিক্রি হচ্ছে ৬০ টাকা, কাঁকরোল ৮০ টাকা, পেঁপে ৫০-৬০ টাকা, করলা ৬০ টাকা, বরবটি বিক্রি হচ্ছে ৫০ টাকা কেজিতে। প্রতি কেজি পটল ৫০ টাকা, ঢেঁড়স ৬০ টাকা, ঝিঙে ৭০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে এবং টমেটো কেজি ১০০ টাকা, মুলা ৪০-৫০ টাকা, শসা ৬০ টাকা, মিষ্টি কুমড়া (পিস) ৫০ টাকা, গাজর প্রতি কেজি ৭০/৮০ টাকা, কচুর লতি ৬০/৭০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

অনদিকে বাজারে দাম বেড়েছে মাছের দাম। পাঙাস বিক্রি হচ্ছে ১৭০-২০০ টাকা, রুই ২৮০-৩০০ টাকা, তেলাপিয়া ২০০/২২০ টাকা, কাতল ২৮০ টাকা, শিং ৩৮০ টাকা।

মাছ কিনতে আসা আহম্মদ হোসেন রাইজিং কুমিল্লাক বলেন, ‘প্রতি সপ্তাহে দেখবেন কিছু না কিছুর দাম বাড়ে। গত সপ্তাহে পেঁয়াজের বাজার ছিলো বেশ চড়া। সেটার দাম কমলেও আজ মাছের বাজার চড়া। তবে সবজির দাম কমেছে।