মে ২৪, ২০২৪

শুক্রবার ২৪ মে, ২০২৪

প্রথম দিনে ভারত থেকে এলো ৭১ ট্রাক পেঁয়াজ

প্রথম দিনে ভারত থেকে এলো ৭১ ট্রাক পেঁয়াজ
প্রথম দিনে ভারত থেকে এলো ৭১ ট্রাক পেঁয়াজ। ছবি: সংগৃহীত

৮১ দিন পর বন্ধ থাকার পর দেশের বিভিন্ন স্থলবন্দর থেকে ভারতীয় পেঁয়াজ আমদানি শুরু হয়েছে। সোমবার দুপুরের পর থেকে রাত ৮টার ভেতর বেনাপোল, ভোমরা, হিলি ও সোনামসজিদ স্থলবন্দর দিয়ে এসব পেঁয়াজ দেশে আমদানি করা হয়।

চাঁপাইনবাবগঞ্জের সোনামসজিদ স্থলবন্দর দিয়ে ৫৭টি ট্রাকে করে পেঁয়াজ ভারত থেকে আমদানি করা হয়েছে। এসব পেঁয়াজের পরিমাণ ১০৯৭ মেট্রিক টন। এর আগে, সর্বশেষ গত ১৫ মার্চ এই বন্দর দিয়ে পেঁয়াজ এসেছিল।

এছাড়া, সাতক্ষীরার ভোমরা স্থলবন্দর দিয়ে আমদানি হয়েছে ৮ ট্রাক পেঁয়াজ। এই বন্দর দিয়ে আরও ১০ ট্রাক পেঁয়াজ আসতে পারে বলে জানিয়েছেন ভোমরা শুল্ক স্টেশনের কর্মকর্তারা। জানা গেছে, প্রতি টন পেঁয়াজ ২২০-২৫০ মার্কিন ডলারে আমদানি করা হচ্ছে।

অন্যদিকে, প্রায় দুই মাস পর ভারত থেকে দিনাজপুরের হিলি স্থলবন্দরে দিয়ে এন আলম ট্রেডার্স নামের একটি প্রতিষ্ঠান পেঁয়াজ আমদানি শুরু করেছে। সোমবার পেঁয়াজবোঝায় ৩টি ট্রাক হিলি বন্দরে প্রবেশ করে।

যশোরের বেনাপোল স্থলবন্দর দিয়ে রাত ৮টার দিকে পেঁয়াজবোঝাই তিনটি ট্রাক দেশে প্রবেশ করেছে। প্রতি মেট্রিক টন ১৫০ মার্কিন ডলারে আমদানি হলেও শুল্কায়ন করা হয়েছে ৩২০ ডলারে। আমদানি পেঁয়াজ ছাড় করাতে ব্যবসায়ীদের শুল্কায়ন মূল্যের ওপর শতকরা ১০ ভাগ হারে শুল্ক পরিশোধ করতে হচ্ছে।

সিএন্ডএফ রয়েল এন্টারপ্রাইজের স্বত্বাধিকারী রফিকুল ইসলাম বলেন, আমদানিকারকের ৭৫ মেট্রিক টন (৩ ট্রাক) পেঁয়াজ বেনাপোল বন্দরে প্রবেশ করেছে। কাস্টমস ও বন্দরের আনুষ্ঠানিকতা শেষে ছাড় করে এই পেঁয়াজ ঢাকায় পাঠানো হবে। প্রতি মেট্রিক টন ৩২০ মার্কিন ডলারে শুল্কায়ন ও সরকারি শুল্ক পরিশোধ করে প্রতি কেজি পেঁয়াজের মূল্য পড়ছে ৩৯ টাকা। এর ওপর বন্দর চার্জ, ট্রাক ভাড়াসহ অন্যান্য খরচ মিলিয়ে প্রতি কেজি ৪৫ টাকা পড়বে।

উল্লেখ্য, সরকার ভারতীয় পেঁয়াজ আমদানির ঘোষণা দেওয়ার এক দিনের মধ্যে কমতে শুরু করেছে পণ্যটির দাম। দেশের সব পাইকারি বাজারে মাত্র এক দিনের ব্যবধানে নিত্যপ্রয়োজনীয় এ পণ্যটির দাম কেজিপ্রতি কমেছে ১৫ থেকে ২৫ টাকা পর্যন্ত। তবে খুচরা বাজারে এখনো পেঁয়াজের দাম কমার প্রভাব পড়েনি। ব্যবসায়ীরা বলছেন, দ্রুতই খুচরায়ও দাম কমে আসবে।