মে ২৪, ২০২৪

শুক্রবার ২৪ মে, ২০২৪

পিটার হাসের জায়গায় বাংলাদেশে আসছে যুক্তরাষ্ট্রের নতুন রাষ্ট্রদূত, কে এই ডেভিড মিল?

David Slayton Mill
ডেভিড স্লেটন মিল | ছবি: সংগৃহীত

বাংলাদেশে নতুন মার্কিন রাষ্ট্রদূত হিসেবে ডেভিড স্লেটন মিল এর নাম ঘোষণা করেছে হোয়াইট হাউজ।

গতকাল বৃহস্পতিবার (৯ মে) প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ডেভিড স্লেটন মিলকে ঢাকায় নতুন রাষ্ট্রদূত হিসেবে মনোনীত করেন।

হোয়াইট হাউসের তথ্য অনুযায়ী, ডেভিড মিলি প্রায় ১০ বছর আগে ঢাকায় মার্কিন মিশন উপপ্রধান ছিলেন। বর্তমানে তিনি চীনে মার্কিন মিশন উপপ্রধান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

বিবৃতিতে হোয়াইট হাউজ বলেছে, ডেভিড মিলিকে বাংলাদেশে মার্কিন রাষ্ট্রদূত মনোনীত করার বিষয়ে বাইডেনের সিদ্ধান্ত মার্কিন কংগ্রেসে যাবে। সেখানে পররাষ্ট্রবিষয়ক কমিটিতে শুনানি হবে। ওই কমিটির সুপারিশের ভিত্তিতে কংগ্রেস এ মনোনয়ন অনুমোদনের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবে।  মনোনয়ন অনুমোদন হলে ডেভিড মিলি বাংলাদেশ মার্কিন রাষ্ট্রদূত হিসেবে পিটার হাসের স্থলাভিষিক্ত হবেন।

দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনের আগে বাংলাদেশের ভোট নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন শলাপরার্শ ও আলোচনা-সমালোচনার সময় পিটার হাস অন্যতম প্রধান কূটনীতিক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

নির্বাচন শেষের পাঁচ মাসের মধ্যে বাংলাদেশ বিষয়ে অভিজ্ঞ ডেভিড মিলকে ঢাকায় পাঠাচ্ছে ওয়াশিংটন।

হোয়াইট হাউজের তথ্য অনুযায়ী, অভিজ্ঞ কূটনীতিক মিল মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের অর্থনীতি ও ব্যবসাবিষয়ক বিভাগে উপ-সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিসেবেও কাজ করেছেন। একই বিভাগের নিষেধাজ্ঞানীতি ও বাস্তবায়নবিষয়ক পরিচালকের দায়িত্ব পালন করেছেন তিনি। ঢাকা, বেইজিং ছাড়াও তিনি ইউক্রেনের মার্কিন দূতাবাসে কাজ করেছেন।

ফরেন সার্ভিসে যোগদানের আগে, স্প্রিন্ট টেলিকমিউনিকেশনের করপোরেট ফাইন্যান্স কর্মকর্তা হিসেবে কাজ করেন মিল।

ভার্জিনিয়ায় জন্ম নেওয়া এই কূটনীতিক ডেলাওয়্যার বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ব্যাচেলর অব আর্টস ও টুলেন ইউনিভার্সিটি থেকে মাস্টার অব বিজনেস অ্যাডমিনিস্ট্রেশন (এমবিএ) শেষ করেন।

পরে তিনি ন্যাশনাল ডিফেন্স ইউনিভার্সিটির আইজেনহাওয়া স্কুল থেকে আরেকটি স্নাতোকত্তর ডিগ্রি নেন।

তাছাড়া কর্মক্ষেত্রে সফলতা পেতে তিনি চীনা, ইউক্রেনীয় ও ফরাসি ভাষাও রপ্ত করেছেন। যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র বিভাগে অসামান্য অবদান রাখায় বেকার-উইলকিন্স পুরস্কার পেয়েছেন ডেভিড মিল।

ডেভিড স্লেটন মিল শিক্ষক লিসা ও’ডোনেলের সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হয়েছেন এবং তাদের দুটি ছেলে থিও ও বেনেট রয়েছে। তারা উভয়ই কলেজে পড়ছে।