মে ২৩, ২০২৪

বৃহস্পতিবার ২৩ মে, ২০২৪

দলীয় সিদ্ধান্ত অমান্য, কুমিল্লার ৪ নেতাকে বহিষ্কার করল বিএনপি

Bangladesh Nationalist Party (BNP)
বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল। গ্রাফিক্স : রাইজিং কুমিল্লা

উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে দলীয় সিদ্ধান্ত অমান্য করে অংশ নেওয়া কুমিল্লার চার জন নেতাকে দল থেকে বহিষ্কার করেছে বিএনপি।

শুক্রবার (২৬ এপ্রিল) বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে তাদের বহিষ্কারের তথ্য জানান।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, বিএনপির যেসব নেতৃবৃন্দ চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ারম্যান (পুরুষ ও মহিলা) পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন তাদের দলীয় গঠনতন্ত্র মোতাবেক বিএনপির প্রাথমিক সদস্য পদসহ সকল পর্যায়ের পদ থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। বহিষ্কার হওয়াদের মধ্যে উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থী ২৮ জন, ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী ২৪ জন এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী ২১ জন রয়েছেন।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, দলীয় শৃঙ্খলা রক্ষায় এবার কঠোর বিএনপি। এর অংশ হিসেবে উপজেলা পরিষদের প্রথম ধাপের নির্বাচন ঘিরে বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাদের বহিষ্কার করা হচ্ছে। এর মাধ্যমে বিএনপি তৃনমূলকে বার্তা দিতে চাইছে, বাকি ধাপের নির্বাচনে দলীয় কেউ অংশ নিলে একই ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এরমধ্য দিয়ে কেউ দলের কোনো সিদ্ধান্ত অমান্য করবেন না এমনই আশা করছে শীর্ষ নেতারা।

কুমিল্লার যে চার নেতাকে বহিষ্কার করেছে বিএনপি তারা হলেন: 

কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা লাঙ্গলকোট উপজেলা বিএনপির সদস্য মাজহারুল ইসলাম (উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থী), কুমিল্লা উত্তর জেলা মহিলাদলের সহ নারী অধিকার বিষয়ক সম্পাদক হালিমা আক্তার শিমু (মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী), কুমিল্লা উত্তর জেলা মহিলাদলের সহ সাধারণ সম্পাদক দিলারা শিরীন (মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী), কুমিল্লা উত্তর জেলা বিএনপি যুগ্ম আহবায়ক রমিজ উদ্দীন লন্ডনী (চেয়ারম্যান প্রার্থী)।

বিএনপির কেন্দ্রীয় ত্রাণ ও পুনর্বাসন বিষয়ক সম্পাদক হাজী আমিনুর রশিদ ইয়াসিন বহিষ্কারের বিষয়ে বলেন, ‘যারা দলীয় সিদ্ধান্ত অমান্য করে নির্বাচনে অংশ নিচ্ছে তাদেরকে বহিষ্কার করা হয়েছে। দল নির্বাচনে যাবেনা সিদ্ধান্ত নিয়েছে- এটাই দলের কাছে সঠিক মনে হয়েছে। আর যারা নির্বাচন করছে তাদের কাছে মনে হয়েছে নির্বাচন করা ঠিক। তাই দলের সিদ্ধান্ত অমান্য করায় তাদের ব্যাপারে এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে দল।’

এর আগে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মতো উপজেলা নির্বাচনের ভোটও বর্জনের সিদ্ধান্ত নেয় বিএনপি। উপজেলা পরিষদের প্রথম ধাপের নির্বাচনে মনোনয়নপত্র জমার শেষ দিনে গত ১৫ এপ্রিল দলটির জাতীয় স্থায়ী কমিটির সভায় এই নির্বাচন বর্জনের সিদ্ধান্ত হয়।

এরপর মনোনয়পত্র জমা দেওয়া দলীয় নেতাদের তা প্রত্যাহারের জন্য কেন্দ্র থেকে জানানো হয়। একই সঙ্গে তাদের সঙ্গে কথা বলেন সংশ্লিষ্ট বিভাগীয় সাংগঠনিক ও সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক ও জেলার নেতারাও। কেন্দ্রীয় সিদ্ধান্ত মেনে শেষ পর্যন্ত ৩০ জনের মতো নেতা মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করেন, যারা চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যান পদে প্রার্থী ছিলেন।

পরে দলীয় সিদ্ধান্ত অমান্য করে ভোটে থাকা ৭৩ নেতাকে ৪৮ ঘণ্টার সময় দিয়ে শোকজ করে দলটি। এরপর তাদের বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত হয়। উপজেলা পরিষদের প্রথম ধাপের ভোট হবে আগামী ৮ মে।